Text size A A A
Color C C C C
পাতা

সিটিজেন চার্টার

বাংলাদেশ রেলওয়ে নিজস্ব নেটওয়ার্কের মধ্যে যাত্রী  ও মালামাল পরিবহন  সেবা প্রদান করে। বাংলাদেশ রেলওয়ে যাত্রী পরিবহনের জন্য আন্তঃনগর, মেইল, এক্সপ্রেস, কমিউটার  ও লোকাল ইত্যাদি ধরণের ট্রেন পরিচালনা করে। মেইল ও এক্সপ্রেস ট্রেনে শীতাতপ ও প্রথম শ্রেণীতে এবং সকল আন্তঃনগর ট্রেনে সকল যাত্রীর জন্য আসন সংরক্ষণের ব্যবস্থা আছে। সকল প্রকার ট্রেনের সময় সূচী প্রয়োজন মোতাবেক রেলওয়ে প্রশাসন প্রণয়ন করে। ট্রেনের বিস্তারিত সময় সূচী রেলওয়ের ঠিকানা  www.railway.gov.bdতে পাওয়া যাবে। প্রত্যেক ষ্টেশনে টিকিট বিক্রির জন্য এক বা একাধিক টিকিট কাউন্টার থাকে। সব ষ্টেশনে গন্তব্য স্থানের ভাড়ার তালিকা টানানো থাকে। বিনা টিকিটে রেল ভ্রমণে রেলওয়ে আইনে জেল ও জরিমানার বিধান আছে। দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের বিনা ভাড়ায় ২য় শ্রেণীতে এবং ছাত্র, বিএনসিসি, স্কাউট, গার্লস গাইডগণ রেয়াতী ভাড়ায় রেলভ্রমণ করতে পারেন। তিন বছরের কম বয়সী  শিশু  বিনা ভাড়ায় এবং তিন থেকে বার বছরের কম বয়সী  যাত্রী সকল শ্রেণীতে দুই-তৃতীয়াংশ ভাড়ায় রেল ভ্রমণ করতে পারেন। টিকিটের শ্রেণীভেদে প্রত্যেক যাত্রী নির্দিষ্ট পরিমাণ মালামাল বিনা ভাড়ায় সাথে নিতে পারেন। অতিরিক্ত মালামাল মাশুল পরিশোধ সাপেক্ষে লাগেজ হিসেবে গন্তব্য পর্যন্ত নেয়া যাবে। রেলযোগে অধিকহারে মালামাল পরি্বহনের জন্য রেলওয়ে ব্যবসায় বা শিল্প প্রতিষ্ঠানের ভিতরে সাইডিং সুবিধা দিয়ে থাকে। পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত থেকে মালামাল আমদানী-রফতানীর জন্য দু‌’দেশের  মধ্যে মালবাহী ট্রেন চলাচলের ব্যবস্থা আছে।